Sunday, September 17, 2017

নেত্রকোনায় পুলিশ সদস্যদের পুরষ্কৃত করলেন এএসপি

স্টাফ রিপোর্টারঃ চাঞ্চল্যকর কিশোরী পান্না আক্তারের গণ ধর্ষণ ও আত্মহত্যার প্ররোচনা মামলার আসামীদের দ্রুত গ্রেফতার এবং প্রকৃত রহস্য উদঘাটনে সাফল্যের স্বীকৃতি হিসেবে মামলার তদন্ত ও অভিযানে সংশ্লিষ্ট পুলিশ সদস্যদের পুরস্কৃত করেছেন নেত্রকোনা পুলিশ সুপার জয়দেব চৌধুরী।
পুলিশ সুপার শনিবার নিজ কার্যালয়ে ডেকে নিয়ে তাদের হাতে পুরস্কার বাবদ নগদ ১০ হাজার টাকা এবং অভিনন্দন বার্তা তুলে দেন।
নেত্রকোনা সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ ছানোয়ার হোসেন, সদর থানার ওসি (তদন্ত) শাহনূর এ আলম, ডিবির ওসি নাজমুল আলমসহ সংশ্লিষ্ট উপ-পরিদর্শক ও কনস্টেবলরা পুলিশ সুপারের কাছ থেকে এ পুরস্কার গ্রহণ করেন।
এ সময় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার এসএম আশরাফুল আলম (সদর) ও অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) মোহাম্মদ শাহজাহান মিয়াসহ জেলা পুলিশের উর্ধতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

পুলিশ সুপার জয়দেব চৌধুরী এ সময় বলেন, চাঞ্চল্যকর এ ঘটনায় মামলা রজুর দুই দিনের মধ্যে সংশ্লিষ্ট পুলিশ সদস্যরা দুই আসামীকে গ্রেফতার ও ঘটনার প্রকৃত রহস্য উদ্ঘাটনে সক্ষম হয়েছেন। তাই তাদের পুরস্কৃত করে উৎসাহিত করা হয়েছে। জেলা পুলিশের তহবিল থেকেই এ পুরস্কার দেয়া হয়।

জানা গেছে, সদর উপজেলার ঠাকুরাকোনা গ্রামের কৌশিক সরকার অপু, মামুন মিয়া ও সুলতান (পলাতক) গত ঈদুল আজহার পরদিন (৩ সেপ্টেম্বর) বিকেলে একই গ্রামের দরিদ্র রিক্সচালক লালচানের কিশোরী কন্যা পান্না আক্তারকে ডেকে পাশ্ববর্তী মাছের খামারের একটি ঘরে নিয়ে ধর্ষণ করে। পরদিন সকালে বাড়ির একটি পরিত্যক্ত ঘরে তার ঝুলন্ত লাশ পাওয়া যায়। এ ঘটনায় মামলা রজুর দু’দিনের মধ্যে পুলিশ অপু ও মামুন মিয়াকে গ্রেফতার এবং তাদের কাছ থেকে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী আদায় করে।


শেয়ার করুন

Author:

Etiam at libero iaculis, mollis justo non, blandit augue. Vestibulum sit amet sodales est, a lacinia ex. Suspendisse vel enim sagittis, volutpat sem eget, condimentum sem.

0 coment rios: